গল্পগোডাউন

ওয়ার্ম হোল: কুটু'স ডেনের আমার লাইব্রেরীটা একপ্রকার পোকার গর্ত!

, October 11, 2020 WAT
Last Updated 2020-10-11T06:15:24Z
Advertisement
লাইব্রেরি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর লাইব্রেরি ছবি লাইব্রেরি প্রবন্ধ স্কুল লাইব্রেরি লাইব্রেরি নিয়ে কবিতা লাইব্রেরির গুরুত্ব লাইব্রেরি নাম লাইব্রেরি ব্যবস্থাপনা
বিশাল জ্ঞানভান্ডারের মাঝে আমরা আসলে ছোট্ট পোকার মতই

ওয়ার্ম হোল (Worm Hole)! হ্যাঁ, এটাই আমার লাইব্রেরীর নাম। আমার লাইব্রেরীটা একটা ওয়াল কিংবা একটা ব্রীজ কিংবা গর্তের মতই যা দাঁড়িয়ে আছে দুটো জগতের মাঝে। ওয়ার্ম হোল যেমন সংযোগ ঘটায় দুটো প্যারালাল ইউনিভার্সকে, ঠিক তেমনি বাস্তবিকভাবেও আমার বুকসেল্ফগুলো আমার দুটো জগতকে আলাদা করে অন্যরকমভাবে একসূত্রে গেথে রেখেছে। আরেক অর্থে আমার লাইব্রেরীটা একপ্রকার পোকার গর্তও। কারণ বিশাল জ্ঞানভান্ডারের মাঝে আমরা আসলে ছোট্ট পোকার মতই। আর মাঝে মাঝে আরো ছোট ছোট কিছু বুকওয়র্ম এসে ভীড় করে আমার এখানে। ওদের আমি ডাকি লালাকুটু বলে। আমার বাসাটার নামও তাই 'কুটু'স ডেন (Kutu's Den)।

বলছিলাম আমার লাইব্রেরির কথা। ওয়ার্ম হোলের একপাশে আমার নিজস্ব ওয়ার্কস্টেশন অগোছালো স্যালভিজ ইয়ার্ডের মত। ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকে আমার কাজের জিনিস- কাগজ, কলম, যন্ত্রপাতি, 🔭 লেন্স, 🔬 স্লাইড, সার্কিট, তার, সুইচ 🔌 কিংবা নাট বল্টু 🛠....অন্যদিকে তাকে সাজানো ছোট বড় নতুন পুরাতন বই 📖 আর পশ্চিমের জানালা লাগোয়া একটা পড়ার টেবিল। শেষ বিকেলের সূর্যের বর্নচ্ছটায় মিশে থাকে ভেলিকোর (Velichor- mixed scent of books in a library)। একটা ছোট্ট ওয়ার্মহোল দিয়ে আমি এই দুই জগতে আসা যাওয়া করতে পারি।

আমার বাসা সায়েন্স ও লিটারেচারের একটা ব্রীজ। আমি ফিজিক্সের আর কুটুসোনাদের আম্মু সাহিত্যের। পদার্থবিজ্ঞান ও সাহিত্যের একটা মেলবন্ধন! লুইস ক্যারলের এলিস ইন দ্য ওয়ান্ডারল্যান্ড এর মত। একটি গর্ত দুটো বিশ্বের মাঝে। ব্ল্যাক হোলের মধ্য দিয়ে আরেকটি প্যারালাল ইউনিভার্সে চলে যাওয়া। দুটোই ধারন করে মহাবিশ্বকে। দুটো ইন্টারেস্টের সমন্বয়েই গড়ে উঠছে আমাদের লাইব্রেরি। একাডেমিক পড়ার পাশাপাশি আমার বিশেষ পছন্দ কসমোলজি, জিওপলিটিক্স, ফিলোসফি, ধর্মতত্ত্ব, থ্রিলার ইত্যাদি। আমার লাইব্রেরীতে সব ক্যাটাগরির বইই কম বেশি আছে। ডিজিটালাইজেশনের এই উর্ধ্বযাত্রার যুগেও আমি মনে করি প্রিন্ট বুকের যে ক্ল্যাসিকেল আবেদন তা কখনোই ফুরুবে না। তাই আমি অনেক বই যেগুলো লোকাল মার্কেটে পাওয়া যায় না কিংবা দাম অনেক বেশী সেগুলো আমার ওয়ার্কস্টেশনে বসেই  প্রিন্টিং বাইন্ডিং করে বই বানিয়ে ফেলি । আর এ জন্য সব ব্যবস্থাই মুটামুটি করে ফেলেছি দু'জন মিলে।

বেস্ট কালেকশনের মধ্যে-

  • ইসলামিক ফাউন্ডেশনের ইসলামী বিশ্বকোষ
  • সায়েদ কুতুবের তাফসীর ফী যিলালিল কোরআন
  • অক্সফোর্ড ও ডিকে সিরিজের বেশ কিছু বই
  • আসিমভ
  • আর্থার সি ক্লার্কের সায়েন্স ফিকশন
  • ড্যান ব্রাউনের বইগুলো
  • ন্যাশনাল জিওগ্রাফিক
  • রিডার্স ডাইজেস্ট

আরো কিছু সায়েন্স ম্যাগাজিনের কালেকশন, বিভিন্ন ফেমাস লেখকের রচনা সমগ্র, অনুবাদ সাহিত্য, রাজনীতি ও দর্শনশাস্ত্রের উপর বই, বিভিন্ন লিটল ম্যাগাজিন, কমিকস, সেবা প্রকাশনীর বই ইত্যাদি। মোট বই হাজারের কাছাকাছি হবে। আছে আমার ছোট্ট সোনামনিদের জন্য কর্নারও। ওরা বই ঘাটাঘাটি করে, আঁকিবুকি করে, এমনকি বইয়ের পাতা ছিড়ে খেয়েও ফেলে আমি কিচ্ছু মনে করি না... বই হোক ওদের খেলার সাথী। খেলতে খেলতেই বইয়ের সাথে ওদের বন্ধুত্ব হয়ে যাবে। ওরা বড়ো হোক বইয়ের সাথে।

আমাদের জন্য, আমার ছোট্ট বইপোকাদের জন্য দোয়া করবেন।

আল্লাহ হাফেজ।

- রবিউল আলম

প্রভাষক, বিএএফ শাহীন কলেজ চট্টগ্রাম